July 30, 2021

গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড- এ বাংলার গোবিন্দভোগ

বিদিতা ঘোষ, কলকাতা

বাংলার মাটি থেকে উৎপন্ন গোবিন্দ ভোগ, তোলাইপাঞ্জির মত চাল আজ বিশ্ব বন্দিত। এই ধরনের স্বাদে-গন্ধে অতুলনীয় চালকে বিশ্বের বাজারে প্রমোট করতে গত কয়েক বছর ধরে উদ্যোগী হয়েছে রাইস ভিলা। আর তারই সাফল্য হিসাবে বাংলার গোবিন্দ ভোগ গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড-এ জায়গা করে নিয়েছে রেকর্ড সৃষ্টি করে। বাসমতি চালকে টেক্কা দিয়ে গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ড বাংলার গোবিন্দ ভোগের। আর এই আনন্দের মুহূর্তকে স্মরণে রাখতে কলকাতায় অনুষ্ঠিত হলো ‘রাইস ভিলা’ উৎসব। এই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কলকাতা পোর্ট ট্রাস্টের ডেপুটি চেয়ারম্যান এস বালাজি অরুণকুমার। উপস্থিত ছিলেন বাংলার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আসা কৃষক বন্ধুরাও। এতদিন গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড-এ রেকর্ড ছিল ৫৫০ কেজি ব্যাগের বাসমতি রাইস

ব্রান্ডের। আর সেই রেকর্ড ভেঙে দিয়ে রাইস ভিলা ব্র্যান্ডের ৬০০ কেজি ব্যাগের গোবিন্দভোগ চাল জায়গা করে নিয়েছে গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড-এ। রাইস ভিলা-র প্রধান সুরজ আগরওয়াল বলেন, বাংলার গোবিন্দভোগ চালের প্রসার ও প্রচার ঘটাতে বদ্ধপরিকর তারা। গোবিন্দভোগ চালের গুনাগুন এবং তার স্বাদ স্পর্কে সাধারণ মানুষের রান্না ঘরে পৌঁছে দিতে নানান কর্মযজ্ঞ শুরু করেছে তারা। সেই সঙ্গে সঠিক গুণগতমানের চাল যাতে তৈরি হয় তার জন্য কৃষকদের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হয়েছে। দেশে ও বিদেশের বাজারে গোবিন্দভোগ চালের চাহিদা পূরণে তারা সব ধরনের উদ্যোগী ভূমিকা গ্রহণ করেছে বলেও জানান তিনি। সুরজ আগরওয়াল বলেন গোবিন্দভোগ চালের প্রতি মানুষের যত উৎসাহ বাড়বে ততই বাংলার কৃষকরা উপকৃত হবেন। সেই সঙ্গে বাংলার অর্থনৈতিক মেরুদন্ডও শক্তিশালী হবে।

ছবি – রাজেন বিশ্বাস ।

Total Page Visits: 374 - Today Page Visits: 2