February 28, 2021

বিশ্বমানের স্টেরিলাইজেশন প্রটোকল চালু করল অ্যাপোলো গ্লেনেগলস হাসপাতাল

তনয় মন্ডল – কলকাতা

অপারেশন থিয়েটারের সংক্রমণ ঠেকাতে বিশ্বমানের স্টেরিলাইজেশন প্রটোকল চালু করল অ্যাপোলো গ্লেনেগলস হাসপাতাল। এইরকম সংক্রমণ ঠেকাতে কলকাতার অ্যাপোলো গ্লেনেগলস হাসপাতাল তাদের সেন্টাল স্টিরাইল সাপ্লাই ডিপার্টমেন্ট(সিএসএসডি) কে আন্তর্জাতিক মান অনুসারে দক্ষ করে তুলেছে। তারফলে এই হাসপাতাল হয়ে উঠেছে বিশ্বের সেরা হেলথকেয়ার ইনস্টিটিউটের সমতুল। সিএসএসডি -র প্রক্রিয়া করণ নিয়ে অ্যাপোলো গ্লেনেগলস হাসপাতাল তাঁদের অডিটোরিয়ামে এক সাংবাদিক বৈঠক করেন। ওই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন অ্যাপোলো গ্লেনেগলস হাসপাতাল লিমিটেডের সিএসএসডি বিভাগের প্রধান তপন কুমার দাস, স্টিলকো এসপিএ, ইতালির আন্তর্জাতিক বিজনেস ডেভেলপমেন্ট ম্যানেজার এন্ডু সেজারে তার মতে হাসপাতালে ব্যবহৃত সব ধরনের সার্জিক্যাল যন্ত্রপাতি জীবাণুমুক্ত করা যায় সিএসএসডি এর মাধ্যমে। এটি করা হয় পাঁচটি পদক্ষেপের মাধ্যমে- দূষণমুক্ত করা., জড়ো করা, স্টেরিলাইজ করা, ব্যাকটেরিয়ামুক্ত অবস্থায় স্টোরে রাখা এবং সেগুলি আবার বন্টন করে দেওয়া।
কার্ডিওথোরাসিক ভাসকুলার সার্জন অ্যাপোলো গ্লেনেগলস ডিরেক্টর ও সিনিয়র কনসালটেন্ট ডাক্তার সুশান মুখোপাধ্যায় ও হাসপাতালের কনসালটেন্ট অর্থোপেডিক সার্জন ডাক্তার অভিক কর বলেন যেসব রোগীর খুব সাধারণ সার্জারি হয়েছে সঠিক সিএসএসডি না থাকলে তাদেরও সংক্রমণ হতে পারে। সিএসএসডি বিভাগের প্রধান তপন কুমার দাস ব্যাখ্যা করেন সিএসএসডির। বুঝিয়ে বলেন প্রতিটি ধাপে মেশিনের গুরুত্ব। তিনি আরো বলেন এইসব ধাপের কোন একটা ঘাটতি থাকলে রোগীর মৃত্যুও হতে পারে। প্রতিটি যন্ত্র ব্যবহারের পর সেগুলিকে সাফাই এর তিনটি ধাপ পেরোতে হয় প্রথমে এনজাইম সলিউশন ও জল দিয়ে পরিষ্কার করা। তারপর ৯০ ডিগ্রি তাপমাত্রা জলে জীবনুশূন্য করা হয়। এই পদ্ধতি ব্যবহারের ফলে যেখানে আন্তর্জাতিক স্তরে ওটিতে সংক্রমণের হার যখন ৩ থেকে ২১% তখন অ্যাপোলোর ক্ষেত্রে সেই হার ০.৫৩%।

Total Page Visits: 313 - Today Page Visits: 1