August 14, 2022

ইন্ডি রয়েল মিস্ মিসেস ইন্ডিয়া ২০২২ এর প্রতিযোগিতায় বিশিষ্ট অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন টলি কুইন “ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত”

শ্রীজিৎ চট্টরাজ কলকাতা

বিদেশের পাশাপাশি আমাদের দেশেও বিভিন্ন সংস্থা ও সংগঠন সুন্দরী প্রতিযোগিতার আয়োজন করে থাকে। এঁদের অন্যতম ইন্ডি রয়েল মিস্ মিসেস ইন্ডিয়া প্রতিযোগিতা। ২০১৬ থেকে এই সংস্থা মিস্ মিসেস ইন্ডিয়া প্রতিযোগিতা সংগঠিত করে আসছে সাফল্যের সঙ্গে। রবিবার পূর্ব কলকাতার এক সাততারা হোটেলের ব্যাংকয়েটে অনুষ্ঠিত হলো ইন্ডি রয়েল ইন্ডিয়া মিস্ মিসেস ইন্ডিয়া ২০২২। এঁদের শ্লোগান, পাওয়ার অফ দ্য ক্রাউন। নারীর সামগ্রিক উত্তরণের লক্ষ্যে এই সংস্থার দাবি ,দেশের একমাত্র সংস্থা যা দেশের সরকারি নারী কল্যাণ দফতরের স্বীকৃতি প্রাপ্ত। সংগঠনের বছরব্যাপী কর্মযজ্ঞে নারীদের ব্যক্তিত্ব সচেতনা,সৌন্দর্য সচেতনতা, এবং আকর্ষণীয় কর্পোরেট ইভেন্ট পরিচালনা করা হয়।

অবিবাহিত ও বিবাহিত নারীর জীবনের ইচ্ছাপূরণ ঘটাতে এবং সমাজে স্বসম্মানে সাফল্যের মুক্ত আকাশে ওড়ার প্রেরণা জোগানো হয়। এবারের অনুষ্ঠানেও তাই কিশোরী তরুণীদের সঙ্গে প্রৌঢ়ারাও সমান তালে র‍্যাম্পে হাঁটলেন। অস্বীকার করার উপায় নেই, আধুনিক ভারতে হাজারও প্রতিকূলতা কাটিয়ে মেয়েরা পুরুষের সঙ্গে সমান তালে সবক্ষেত্রেই যোগ্যতার পরিচয় রাখছেন। প্রতি বছরের মত এবারও প্রতিযোগীদের উৎসাহ দিতে হাজির হোন অভিনেত্রী ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত।সাংবাদিকদের নিজের প্রতিক্রিয়া জানিয়ে তিনি বলেন,দুবছর করোনা পরিস্থিতি আমাদের জীবনের অনেক সময় কেড়ে নিয়েছে। কেড়ে নিয়েছে অনেক প্রিয়জন। জীবনের গতি হয়েছিল স্তব্ধ। আস্তে আস্তে আমরা আবার ফিরছি স্বাভাবিক জীবনে। এই ধরনের অনুষ্ঠান মেয়েদের আবার নতুন জীবনীশক্তি প্রদান করবে। নারীর মূল্যায়নে জাতি সমৃদ্ধ হয়। জাতি সমৃদ্ধ হলে দেশ সমৃদ্ধ হয়। আমি প্রথম থেকেই এঁদের সঙ্গে আছি। ঋতুপর্ণা র‍্যাম্পে

বেশকিছু প্রতিযোগীর সঙ্গে হাঁটলেন। পুরস্কার তুলে দিলেন বেশ কিছু ব্যক্তিত্বকে। সংস্থার এই প্রতিযোগিতায় সুজনের ভূমিকা বেশ গুরুত্বপূর্ণ। এঁরা হলেন মেন্টর রলি ত্রিপাঠি ও চয়ী আস্থানা। চয়ী ১৫ বছরের অভিজ্ঞতাসম্পন্ন ব্যক্তিত্ব নির্মাণের গবেষক । আই টি ও সফট টেকনোলজির কর্মীদের মানসিক বিকাশে নিয়োজিত আছেন। রলি এই প্রতিযোগিতার প্রথম বছরের এক সফল প্রতিযোগী ছিলেন। এখন বিভিন্ন বিলাসবহুল হোটেলে পরিষেবাগত পেশাদারী শিক্ষা দিয়ে থাকেন। ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট পরিষেবায় বিয়ের অনুষ্ঠানের সুষ্ঠ পরিকল্পনা নির্মাণ করেন।

সংস্থার তরফে জানানো হয়,প্রতিযোগীদের গ্রুমিংগ,অনলাইন জুম ক্লাস,ফ্যাশন স্টাইল , থিমেটিক কোরিয়োগ্রাফি, মেকওভার ও ডিজিটাল পোর্টফোলিও দিয়ে অংশগ্রহণের জন্য উপযোগী করে গড়ে তোলা হয়। এদিন বিচারকদের তালিকায় অন্যতম ব্যক্তিত্ব ছিলেন ফ্যাশন ডিজাইনার ইন্দ্রনীল মুখার্জি, সব্যসাচী বন্দোপাধ্যায়, প্রদীপ কুমার নন্দী, ডা: শিশির পালসাপুরে , সোমা ব্যানার্জি ও পরিচালক শতরূপা সান্যাল। এই প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের নিয়ে অন্তিম পর্যায়ের প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হবে ইন্ডি রয়েল ইন্টারন্যাশানাল এর উদ্যোগে মিস্ মিসেস ইন্টারন্যাশানাল পাটেয়া ২০২২এ। সকাল থেকে এই প্রতিযোগিতা চলে রাত পর্যন্ত। অসংখ্য বিভিন্ন বয়সের প্রতিযোগী ও তাঁদের অভিভাবকদের উপস্থিতিতে বিপুল উদ্দীপনার সৃষ্টি হয়।

ছবি- রাজেন বিশ্বাস।

About Post Author

Total Page Visits: 249 - Today Page Visits: 2