November 28, 2022

কলকাতায় অনুষ্ঠিত হতে চলেছে আগামী বছরের শুরু তেই ইন্ডিয়া ইন্টারন্যাশনাল সীফুড শো

নিজস্ব প্রতিনিধি –

সীফুড সেক্টরে ভারতের অসাধারণ অগ্রগতি মেলে ধরার লক্ষ্যে, মেরিন প্রডাক্টস এক্সপোর্ট ডেভেলপমেন্ট অথরিটি (MPEDA) এবং সীফুড এক্সপোর্টারস অ্যাসোসিয়েশন অফ ইন্ডিয়া (SEAI)-এর যৌথ উদ্যোগে এই শহরে আগামী বছরের ১৫-১৭ ফেব্রুয়ারি ২৩তম ইন্ডিয়া ইন্টারন্যাশনাল সীফুড শো (IISS) আয়োজিত হতে চলেছে।  

আজ একটি যুগ্ম সাংবাদিক সম্মেলনে এই কথা ঘোষণা করেছেন MPEDA চেয়ারম্যান ডঃ কে এন রাঘবন এবং SEAI ন্যাশনাল প্রেসিডেন্ট শ্রী জগদীশ ফোফানডি।

ডঃ রাঘবন জানিয়েছেন, সীফুড সেক্টরের এই দ্বিবার্ষিকী অনুষ্ঠান কলকাতার বিশ্ব বাংলা মেলা প্রাঙ্গনে  আয়োজিত হবে। ভারতের যে ব্যবসায়ীরা দেশের সামুদ্রিক পণ্য বিদেশে রপ্তানী করেন এবং বিদেশে যাঁরা সেগুলি আমদানি করেন, তাঁদের মধ্যে যোগাযোগ বৃদ্ধি করার জন্য এটি একটি আদর্শ মঞ্চ হিসেবে কাজ করবে।  

তিনি আরও জানিয়েছেন, “এখানে ম্যানুফ্যাকচারার এবং সাপ্লায়ার উভয়েই তাঁদের পণ্য সকলের সামনে তুলে ধরার দারুণ সুযোগ পাবেন এবং তাঁদের প্রসেসিং মেশিনারি, প্যাকেজিং সিস্টেম, প্রসেসিং করার উপাদান সামগ্রীর ডিলার ও কোল্ড চেন সিস্টেম- ইত্যাদির জন্য ব্যবসায়িক চুক্তি করতে পারবেন। এর পাশাপাশি, এখানে সেই সমস্ত পরিষেবা প্রদানকারীও যোগ দিতে পারবেন যাঁরা লজিস্টিক্স এবং সার্টিফাইং/টেস্টিং সম্পর্কিত কাজ করেন।”  

এই অনুষ্ঠানে নতুন কিছু সুযোগ তৈরি করার প্রচুর সম্ভাবনা থাকছে এবং এখানে গ্লোবাল মার্কেটের জন্য বিভিন্ন নতুন প্রযুক্তি ও পণ্য তুলে ধরা হবে। এর আরও একটি উদ্দেশ্য হল সীফুড পণ্যগুলি উৎপাদন, প্রক্রিয়াকরণ এবং পরিবহণের মতো সামগ্রিক ভ্যালু চেনের স্থায়িত্ব নিশ্চিত করার লক্ষ্যে আমাদের দেশের প্রতিশ্রুতিবদ্ধতাকে সকলের সামনে তুলে ধরা। তাছাড়াও এখানে রপ্তানি করা সামগ্রীর প্রক্রিয়াকরণ, ট্রেসেবিলিটি এবং ভ্যালু সংযোজন-এর জন্য গৃহীত নতুন পন্থাগুলি সম্পর্কে জানানো হবে।

শ্রী ফোফানডি বলেছেন যে, IISS এখন গোটা বিশ্বে আয়োজিত প্রধান সীফুড শোগুলির মধ্যে অন্যতম হয়ে উঠেছে। তিনি আরও জানিয়েছেন, “IISS ২০২৩ মূলত দেশের সীফুড প্রসেসিং সেক্টরের বিভিন্ন প্রযুক্তিগত উন্নতি এবং দীর্ঘস্থায়ী অনুশীলনগুলি মেলে ধরার প্রচেষ্টা করবে। ফিশিং এবং ফার্মিং সেক্টরের সহযোগিতায় ভারতীয় সীফুড প্রক্রিয়াকরণ ক্ষেত্রে অভাবনীয় উন্নতি হয়েছে। তাছাড়াও, প্রসেসিং ইন্ডাস্ট্রি সর্বদা ভ্যালু সংযোজন করার লক্ষ্যে তার প্রযুক্তিগত ব্যাকআপ আপগ্রেড করার চেষ্টা জারি রাখে।”    

এই অনুষ্ঠানে প্রায় ৭,০০০ বর্গমিটার এলাকাজুড়ে ৩৫০টিরও বেশি সংখ্যক স্টল থাকবে, যেখানে বিভিন্ন অটোমেটেড এবং IT সহায়ক প্রযুক্তি এবং ভ্যালু সংযোজনের জন্য শক্তি-সাশ্রয়কারী সিস্টেমের বিশাল রেঞ্জ প্রদর্শিত হবে। এছাড়াও এখানে বিভিন্ন জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক স্তরের বিশেষজ্ঞরা প্রযুক্তিগত সেশান নেবেন।  

ডেলিগেটদের মধ্যে অন্তর্ভুক্ত থাকবেন সীফুড প্রসেসর, ক্রেতা এবং ভারত ও বিদেশের বিভিন্ন সম্পর্কিত ফার্মের স্টেকহোল্ডাররা, যাঁরা এই সেক্টরগুলির প্রতিনিধিত্ব করবেন। এখানে সেই সমস্ত দেশ থেকে ক্রেতাদের ডেলিগেশান নিয়ে আসার পরিকল্পনা করা হয়েছে, যারা সীফুড প্রসেসিং এবং ভ্যালু সংযোজন ক্ষেত্রে মৌখিক মেলবন্ধনের উপরে জোর দিচ্ছে।

MPEDA এর ডিরেক্টর ডঃ এম কার্তিকেয়ান; MPEDA এর সেক্রেটারি শ্রী কে এস প্রদীপ; SEAI –পশ্চিবঙ্গের রিজিওনাল প্রেসিডেন্ট শ্রী রাজর্ষী ব্যানার্জি; MPEDA এর বর্ষীয়ান আধিকারিক এবং SEAI এর রিজিওনাল প্রেসিডেন্ট এবং কর্মকর্তারা এই সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন।  

২০২১-২২ সালের মধ্যে, ভারত ১৩,৬৯,২৬৪ টন সামুদ্রিক পণ্য রপ্তানি করেছে যাঁর মূল্য US$ 7.76 বিলিয়ন (৭ .৭৬ বিলিয়ন মার্কিন ডলার), এটি আগের সমস্ত রেকর্ড ভেঙে দিয়েছে, এর সাথে চিংড়ি উৎপাদন এক মিলিয়ন MT ছাড়িয়ে গিয়েছে। বহুমুখী কৌশলের সাহায্যে, একাধিক ফিশারি এবং অ্যাকুয়াকালচার অধিগ্রহণ করার মাধ্যমে রপ্তানির টার্নওভার আগামী পাঁচ বছরের মধ্যে US$ 15 বিলিয়ন (১৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার) ছুঁয়ে ফেলবে বলে আশা করা হচ্ছে। দীর্ঘমেয়াদে ফলদায়ী মাছ ধরার প্রক্রিয়া, ভ্যালু সংযোজন এবং ডাইভার্সিফিকেশানের মাধ্যমে অ্যাকুয়াকালচারে উৎপাদনের হার বৃদ্ধি করার ফলে এই লক্ষ্যপূরণ করা সম্ভব হবে বলে আশা করা হচ্ছে।  

IISS ২০২৩ এ রেজিস্ট্রেশান করতে পারেন www.indianseafoodexpo.com ওয়েবসাইট থেকে। অনলাইন স্টল রেজিস্ট্রেশান এবং ডেলিগেটদের জন্য এটি খুলে দেওয়া হয়েছে।  

অন্যান্য বিবরণ এবং জিজ্ঞাস্যের জন্য, যোগাযোগ করতে পারেন কোচি-র পানামপিল্লি নগরে অবস্থিত MPEDA এর মার্কেট প্রোমোশন সেকশান-এ। ফোন করুন +৯১৪৮৪২৩২১৭২২  নম্বরে বা ইমেল করুন iiss@mpeda.gov.inpub@mpeda.gov.in এ।

About Post Author

Total Page Visits: 144 - Today Page Visits: 1