September 27, 2022

ভারতের ২১টি রাজ্যে “মোজ” চালু করল একটি ঐতিহ্যবাহী রান্নার প্রতিযোগিতা

নিজস্ব প্রতিনিধি –

ভারতের এক নম্বর শর্ট ভিডিও অ্যাপ মোজ ভারতের ২১টি রাজ্য জুড়ে তার প্রথম রান্নার প্রতিযোগিতা, কিচেন মিনিস্টারস অফ ইন্ডিয়া চালু করার জন্য প্রস্তুতি নিয়েছে। এই অনন্য ডিজিটাল হান্টটি মোজ ব্যবহারকারীদের তাদের রাজ্যের ঐতিহ্যবাহী খাবারগুলি উপস্থাপন করার এবং সেই রাজ্যের ‘কিচেন মিনিস্টার’ সম্মান লাভ করার সুযোগ করে দেবে। ২৫ জানুয়ারি থেকে শুরু হওয়া একমাস ব্যাপী এই প্রচারাভিযান, ভোজনরসিকদের তাদের প্রতিভা প্রদর্শন করার সুযোগ করে দেবে শুধুমাত্র মোজ-এ নয়,  সঞ্জীব কাপুর এবং অজয় চোপড়া-দের নিয়ে বিখ্যাত শেফদের একটি প্যানেল-এর সামনেও।

প্রত্যেক অংশগ্রহণকারীকে একটি ঐতিহ্যবাহী খাবার প্রস্তুত করতে হবে যা সত্যিকার অর্থে তাদের রাজ্যের রন্ধনসম্পর্কিত সংস্কৃতির হৃদয়কে প্রতিনিধিত্ব করে। এক মাসের এই প্রতিযোগিতার মাধ্যমে, শেফ অজয় চোপড়া কীভাবে ঐতিহ্যবাহী রেসিপিগুলি আয়ত্ত করতে এবং ভিডিওগুলির মাধ্যমে উপস্থাপন করতে হয় সে সম্পর্কে টিপস শেয়ার করে অংশগ্রহণকারীদের পরামর্শ দেবেন৷

প্রতিটি রাজ্য থেকে ‘কিচেন মিনিস্টার’ ঘোষণা করা হবে মার্চ মাসে এবং প্রত্যেকে পুরস্কার হিসেবে ২৫,০০০ টাকা মূল্যের অ্যামাজন/ফ্লিপকার্ট ভাউচার পাবেন। এছাড়াও, নির্বাচিত অংশগ্রহণকারীদের জন্য উপস্থাপন করা হবে সোয়াগ কিচেন মিনিস্টার, ফ্যাশনেবল কিচেন মিনিস্টার, চপিং কিচেন মিনিস্টার, হিউমারাস কিচেন মিনিস্টার, প্রেজেন্টেবল কিচেন মিনিস্টার এবং কিউটনেস কিচেন মিনিস্টার-এর মত বাছাই করা সাপ্তাহিক শিরোনাম।

প্রতিযোগিতার বিষয়ে মন্তব্য করতে গিয়ে, শেফ সঞ্জীব কাপুর বলেন, “ভারতের বিভিন্ন অঞ্চলের খাদ্য সংস্কৃতিকে তার ঐতিহ্য, ইতিহাস এবং বিশ্বাস দ্বারা সংজ্ঞায়িত করা যেতে পারে। আমি মোজ-এর কিচেন মিনিস্টারস অফ ইন্ডিয়া-র অংশ হতে পেরে এবং সারা দেশের ঐতিহ্যবাহী রেসিপিগুলির নতুন যুগের উপযোগী করে উপস্থাপনা দেখতে পাবার সুযোগ পেয়ে অত্যন্ত খুশি। অংশগ্রহণকারীদের তাদের দক্ষতা এবং সৃজনশীলভাবে তাদের স্থানীয় উপাদেয় খাবার উপস্থাপন করার ক্ষমতার ভিত্তিতে বিচার করা হবে।”

প্রতিযোগিতাটিকে আরও প্রচারের জন্য, মোজ জনপ্রিয় ক্রিয়েটারদের তালিকাভুক্ত করেছে যাতে প্রতিটি রাজ্যের ভোজন রসিকদের আরও বেশি করে অংশগ্রহণের জন্য অনুপ্রাণিত করা যায়।

পশ্চিমবঙ্গ থেকে এই প্রচারাভিযানের নেতৃত্ব দিয়ে, অগ্নিজিতা ব্যানার্জি বলেছেন, “আমি নিজে একজন ক্রিয়েটার হিসেবে ভারতের মোজ-এর কিচেন মিনিস্টারস অফ ইন্ডিয়া-র মত প্রতিযোগিতার গুরুত্ব বুঝতে পারি, যা ক্রিয়েটারদের তাদের অনাবিষ্কৃত সম্ভাবনাকে বাড়াতে এবং ব্যবহার করতে সাহায্য করে। এটি সমস্ত অংশগ্রহণকারী ক্রিয়েটারদের জন্য বিশেষজ্ঞ শেফ সঞ্জীব কাপুর এবং অজয় চোপড়ার কাছ থেকে শেখা`র মত একটি অপ্রতিরোধ্য অভিজ্ঞতা তৈরি হবে। আমি এমন একটি উদ্যোগের জন্য আমার রাজ্যের প্রতিনিধিত্ব করতে পেরে অত্যন্ত রোমাঞ্চিত যা পশ্চিমবঙ্গের রন্ধনশিল্প এবং ঐতিহ্যবাহী খাবারের প্রতি আবেগকে পুনরুজ্জীবিত করতে সাহায্য করবে।”

মোজ-এর সঙ্গে এই কোলাবোরেশনের বিষয়ে মন্তব্য করতে গিয়ে, শেফ অজয় চোপড়া বলেছেন, “মোজ-এর কিচেন মিনিস্টারস অফ ইন্ডিয়া হল এক ধরনের ডিজিটাল রান্নার প্রতিযোগিতা যা বিচারকদের খাবারের নমুনা দেবার পরিবর্তে রেসিপি, কৌশল এবং সৃজনশীল উপস্থাপনার ভিডিওর উপর ভিত্তি করে হয়ে থাকে । আমি আমাদের রন্ধন সংষ্কৃতির মূল-এর সঙ্গে পুনরায় সংযোগ করতে পেরে এবং ভারতের উদীয়মান হোম-শেফদের পরামর্শ দেবার মাধ্যমে বিভিন্ন রন্ধন শৈলী আবিষ্কার করতে পেরে রোমাঞ্চিত।”

About Post Author

Total Page Visits: 190 - Today Page Visits: 2