August 14, 2022

সি কে বিড়লা হেলথকেয়ার তার অত্যাধুনিক বিড়লা ফার্টিলিটি এবং আইভিএফ চেইন চালু করার সাথে সাথে পশ্চিমবঙ্গের কলকাতাতে পরিষেবা সম্প্রসারিত করেছে

নিজস্ব প্রতিনিধি –

সিকে বিড়লা হেলথকেয়ার পশ্চিমবঙ্গে (শরৎ বোস রোডের আইডিয়াল প্লাজা) তাদের প্রথম ফার্টিলিটি ক্লিনিক বিড়লা ফার্টিলিটি এবং আইভিএফ চালু করেছে যেখানে তারা ফার্টিলিটি সংক্রান্ত সব ধরনের পরিষেবা দেবে। এই ক্লিনিকটি অত্যন্ত নির্ভরযোগ্য চিকিৎসা, সাশ্রয়ী মূল্যের প্রতিশ্রুতি এবং রোগীদের প্রতি সহানুভূতিশীল এবং বিশ্বাসযোগ্য যত্ন প্রদান করবে। এই সূচনা দিল্লি, গুরুগ্রাম এবং লখনউ এর সঙ্গে এরাজ্যেও বিড়লা ফার্টিলিটি এবং আইভিএফ (বিএফআই) এর উপস্থিতিকে আরও বিস্তৃত করবে।

রোগীদের উচ্চ মানের স্বাস্থ্যসেবা প্রদানের ৫০ বছরেরও বেশি সময়ের নিজেদের অভিজ্ঞতা এবং ধারাবাহিকতাকে সঙ্গে নিয়ে সিকে বিড়লা গ্রুপ হাসপাতাল বর্তমানে কলকাতা, জয়পুর, গুরুগ্রাম এবং দিল্লি জুড়ে রয়েছে। অত্যাধুনিক চিকিৎসা পরিকাঠামো এবং প্রযুক্তি দ্বারা সমর্থিত এই হাসপাতালগুলি বেশ কয়েকটি ক্ষেত্রে পথপ্রদর্শকের ভূমিকা নিয়েছে এবং গত পাঁচ দশকে ভারতের স্বাস্থ্যসেবা প্রেক্ষাপটে অনেক মাইলফলক স্থাপন করেছে। সিকে বিড়লা গ্রুপ ইতোমধ্যে কলকাতায় সিএমআরআই- দ্য ক্যালকাটা

মেডিকেল রিসার্চ ইনস্টিটিউট এবং পূর্ব ভারতের প্রথম কার্ডিয়াক সুপারস্পেশালিটি হাসপাতাল বিএমবি- বিএম বিড়লা হার্ট রিসার্চ সেন্টার এর মতো এমন দুটি উল্লেখযোগ্য স্বাস্থ্য সেবা প্রতিষ্ঠান চালু করে থাকে যা রোগীদের চিকিৎসায় দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে । তাদের নতুন উদ্যোগ, বিড়লা ফার্টিলিটি এবং আইভিএফ এর সঙ্গে, এই গ্রুপের লক্ষ্য অসামান্য ক্লিনিকাল সাফল্যের সঙ্গে গবেষণা এবং উদ্ভাবন এর মাধ্যমে ভবিষ্যৎমুখি পরিবর্তনের হাত ধরে ফার্টিলিটি কেয়ারে বিশ্বব্যাপী অগ্রণী সংস্থা হিসাবে উঠে আসা।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে প্রতিষ্ঠাতা অবন্তী বিড়লা বলেন, “আমরা রোগীদের জন্য অত্যন্ত উন্নতমানের স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দিতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। বিড়লা ফার্টিলিটি ক্লিনিকাল উৎকর্ষ এবং যত্ন সহকারে প্রতিটি দম্পতিকে তাদের সন্তান ধারন যাত্রায় সহায়তা করে এই প্রতিশ্রুতিকে আরও শক্তিশালী করবে। ফার্টিলিটি চিকিত্সা শুধুমাত্র আইভিএফ বিষয়েই সীমাবদ্ধ নয়, বরং সার্বিক ভাবে ভালো ফার্টিলিটি হেলথ এবং চিকিত্সা প্রচার করা। “অল হার্ট. অল সায়েন্স” এর অর্থই হলো ক্লিনিকাল এক্সেলেন্স বা নিদানিক উৎকর্ষ অর্জন এবং সহানুভূতিশীল যত্ন।

নতুন সুবিধা চালু করার বিষয়ে মন্তব্য করতে গিয়ে সি কে বিড়লা হেলথকেয়ারের সিইও অক্ষত শেঠ বলেন, ”ভারতে ফার্টিলিটি সম্পর্কিত সমস্যা রয়েছে এমন ২৩ মিলিয়ন দম্পতির বসবাস করলেও ১% এরও কম তাদের সমস্যার জন্য চিকিৎসা সহায়তা চান, যার মূল কারণ হলো সচেতনতার অভাব। বিড়লা ফার্টিলিটি-তে আমাদের প্রচেষ্টা হল এবিষয়ে সচেতনতা গড়ে তোলা এবং নির্ভরযোগ্য ফার্টিলিটি সংক্রান্ত চিকিত্সা মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়া। কলকাতার পর আমরা পশ্চিমবঙ্গের অন্যান্য প্রধান নগর ও শহরগুলিতে বিস্তৃতির পরিকল্পনা করেছি যাতে রাজ্যের মধ্যে ৮ থেকে ১০টি কেন্দ্রের একটি পরস্পর সংযুক্ত ব্যবস্থা গড়ে তোলা যায়। সারা দেশের জনগোষ্ঠীর মধ্যে ফার্টিলিটি বিষয়ে সচেতনতা ছড়িয়ে দেওয়ার ক্ষেত্রে আমাদের অঙ্গীকারের পুনরাবৃত্তি করার জন্য আমরা বিনামূল্যে ওপিডি পরামর্শ দেব”।

ডাঃ (কর্নেল) অধ্যাপক পঙ্কজ তলওয়ার ভিএসএম, প্রধান মেডিকেল সার্ভিসেস, বিড়লা ফার্টিলিটি অ্যান্ড আইভিএফ আরও বলেন, “প্রচলিত বিশ্বাসের বিপরীতে, ফার্টিলিটি এমন একটি সমস্যা যা পুরুষ এবং মহিলা উভয়কেই সমানভাবে প্রভাবিত করে। আমাদের ফোকাস হবে এই সম্পর্কে মানুষের মধ্যে সচেতনতা তৈরি করা। আইভিএফ চিকিত্সা ছাড়াও, আমরা ফার্টিলিটি চিকিত্সার একটি ব্যাপক পোর্টফোলিও প্রদান করি। এর মধ্যে রয়েছে পুরুষ বন্ধ্যাত্ব চিকিত্সা, এবং জেনেটিক স্ক্রিনিং, ডায়াগনস্টিক, ল্যাপারোস্কোপিক স্ত্রীরোগ সংক্রান্ত পরীক্ষানিরীক্ষা এবং দাতা বা ডোনার পরিষেবার উন্নত সুবিধা। আমরা ফার্টিলিটি প্রিজারভেশন পরিষেবা দিতে পেরে খুব আনন্দিত, যার মধ্যে ক্যান্সার রোগীদের জন্যও পদ্ধতিগুলি অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। পরবর্তী আমাদের চিকিৎসার বিকল্পগুলির মধ্যে পরবর্তী ক্ষেত্রে অঙ্কোলজিস্টদের সাথে পরামর্শ করে একটি অগ্রণী প্রোগ্রাম: তরুণ ক্যান্সার রোগীদের জন্য ওভারিয়ান টিস্যু ফ্রিজিং চালু করা হবে। দম্পতিদের সামগ্রিক ফার্টিলিটি হেলথের উন্নতির দিকে মনোনিবেশ করার জন্য আমাদের ক্লিনিকাল পদ্ধতি

এক ছাদের নীচে বহুমুখী যত্ন প্রদানের মাধ্যমে অনন্য: আমাদের পুষ্টিবিদ, পরামর্শদাতা, এন্ডোক্রিনোলজিস্ট, অ্যান্ড্রোলোজিস্টদের টিম আমাদের ফার্টিলিটি বিশেষজ্ঞদের পাশাপাশি নির্বিঘ্নে নিজেদের কাজ করেন।”

কলকাতার বিড়লা ফার্টিলিটি অ্যান্ড আইভিএফ-এর কনসালট্যান্ট এবং সেন্টার হেড ডঃ সৌরেন ভট্টাচার্য বলেছেন, ‘আমাদের ক্লিনিকগুলি দম্পতিদের জন্য সম্ভাবনার একটি জগৎ খুলে দেবে, যা স্থানীয়ভাবে উন্নতমানের যত্নকে আরও সহজলভ্য করে তুলবে। আমাদের অত্যাধুনিক সরঞ্জাম এবং আধুনিক সুবিধার সাথে, এই ক্লিনিকটি আইভিএফ এবং অন্যান্য বন্ধ্যাত্ব চিকিত্সার জন্য ওয়ান স্টপ গন্তব্য হবে, শুধুমাত্র কলকাতা নয়, পশ্চিমবঙ্গের অন্যান্য প্রান্ত, বিহার, উত্তর-পূর্ব এবং বাংলাদেশের অন্যান্য অংশের রোগীদের জন্যও। আমাদের সাশ্রয়ী মূল্য প্রতিশ্রুতিটাও নিশ্চিত করে।”

About Post Author

Total Page Visits: 288 - Today Page Visits: 3